সমমনা ইসলামী দলগুলোর ডাকে মোদিবিরোধী বিক্ষোভে আজ বাদ জুমা উত্তাল হয়ে উঠেছিল জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমসহ আশপাশের এলাকা। নামাজের পর থেকেই স্বতঃস্ফূর্তভাবে মুসুল্লিরা মোদিবিরোধী স্লোগান দিতে থাকে। এ সময় আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর যথেষ্ট উপস্থিতি লক্ষ করা যায়। এর আগে জুমার নামাজের আগেই বিক্ষোভকারীদের কাছ থেকে ব্যানার এবং মাইক কেড়ে নেয় পুলিশ।

স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী ও বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমানের জন্মশতবর্ষ উপলক্ষে ভারতের বিজেপি সরকারের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বাংলাদেশ সফর বাতিলের দাবিতে সমমনা ইসলামী দলসমূহ এই বিক্ষোভের ডাক দেয়।

মসজিদের উত্তর গেইটে এই সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। সমাবেশ শেষে একটি মিছিল বিজয় নগর মোড় হয়ে পল্টন ও দৈনিক বাংলা মোড় প্রদক্ষিণ করে বাইতুল মোকাররমে এসে সমাপ্ত হয়।

সমাবেশে সমমনা ইসলামী দলসমূহের মুখপাত্র ও জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশ-এর সহসভাপতি মাওলানা আবদুর রব ইউসুফী বলেন, স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীতে বিদেশী রাষ্ট্রপ্রধানদের আগমন নিঃসন্দেহে আমাদের দেশের ভাবমূর্তিকে উজ্জল করবে। বাংলাদেশের জনগণ এসব রাষ্ট্রীয় অতিথিদেরকে অবশ্যই স্বাগত জানাবে। তবে যে নরেন্দ্র মোদীর হাত মুসলমানদের রক্তে রঞ্জিত, যে নরেন্দ্র মোদী পানি না দিয়ে, পানি দিয়ে আমাদেরকে মারছে, সীমান্তে নিরীহ বাংলাদেশীদেরকে হত্যা করছে, সে নরেন্দ্র মোদীকে বাংলাদেশের জনগণ স্বাগত জানাতে পারেনা। মোদীর আগমন কোনভাবেই বরদাশত করা হবে না। আমরা যদি কোন কর্মসূচি ঘোষণার সুযোগ নাও পাই তবুও ২৬সে মার্চ নরেন্দ্র মোদির আগমনের প্রতিবাদে সবাই রাজপথে নেমে আসব।

খেলাফত মজলিসের মহাসচিব ড.আহমদ আব্দুল কাদের বলেন, নরেদ্র মোদিকে প্রতিহত করতে বাংলাদেশের জনগন আজ ঐক্য বদ্ধ। সুতরাং সরকারের সুবুদ্ধির পরিচয় হবে যদি মোদির আমন্ত্রণ বাতিল করে।

ইসলামী ঐক্য আন্দোলনের আমীর মাওলানা ড. ঈসা শাহেদী বলেন, বাংলাদেশের মানুষ ধর্মপ্রান, ধর্মী অনুভূতির প্রতি সম্মান প্রদর্শণ না করলে সরকারকে তার খেসারত দিতে হবে।

জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশ এর প্রচার সম্পাদক মাওলানা জয়নুল আবেদীনের পরিচালনায় সমাবেশে আরও বক্তব্য রাখেন মুসলিম লীগের স্হায়ী কমিটির সদস্য জনাব আতিকুল ইসলাম, খেলাফত মজলিসের নায়েবে আমীর মাওলানা আহমদ আলী কাসেমী, ইসলামী ঐক্য আন্দোলনের মহাসচিব অধ্যাপক মোস্তফা তারেকুল হাসান প্রমুখ।

দুআর মাধ্যমে মোদি বিরোধী এই বিক্ষোভ মিছিলটি সমাপ্ত ঘোষণা করেন বাংলাদেশ খেলাফত মজলিসের ঢাকা মহানগরের সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক মাওলানা এহসানুল হক।

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here