টঙ্গীর ইজতেমা ময়দান মসজিদ সংলগ্ন গড়ে উঠেছিল একটি হাফিজিয়া মাদ্রাসা। তাবলীগের জিম্মাদার ও সাথীদের একান্ত সহযোগিতায় পরিচালিত হতো এই প্রতিষ্ঠানটি।

গতকাল উগ্র সাদপন্থীরা সন্ত্রাসী হামলার মাধ্যমে যখন ময়দানের দখল নেয় তখন তাদের হাত থেকে এই মাদ্রাসা ও মাদ্রাসার ছাত্ররাও রেহাই পায়নি।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, সাদপন্থীরা ময়দানে প্রবেশ করে উক্ত মাদ্রাসার দিকে ছুটে যায়।  মাদ্রাসায় প্রচুর ছেলে পড়াশোনায় ব্যস্ত ছিল। তারা সেখানে গিয়ে ব্যাপক ভাঙচুর  করে। এক পর্যায়ে গেট ভেঙে ভিতরে প্রবেশ করে হিফয ভাগের ছোট্ট ছোট্ট ছেলেদেরকে মারধর করে। তাদের আসবাবপত্র ভাঙচুর করে। প্রত্যক্ষদর্শী একজন বলেন, মাদ্রাসার প্রতি তাদের এতটা বিদ্বেষী মনোভাব যে রয়েছে এটা আগে কখনোই জানা ছিল না। মাদ্রাসা ও মাদরাসার ছাত্রদের তো কোন দোষ নেই।  তাহলে কেন তারা এই মাদ্রাসাকে ভাঙচুর করলেন? বিশেষ করে ছোট ছোট ছেলেদেরকে মারধর করা হয়েছে যারা কোরআনে কারিমের হিফয করছিল বলে জানা যায়।  তাদের উপর অত্যাচার যেকোনো জালিমের অত্যাচারকেও হার মানায়।

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here