পুলওয়ামা হামলার পর থেকেই পাকিস্তানের সঙ্গে ভারতের সম্পর্ক একেবারে তলানিতে ঠেকেছে। পাল্লা দিয়ে সীমান্তে বাড়ছে উত্তেজনা। তথ্য বলছে, গত কয়েক বছরে ভারত এবং পাকিস্তান সীমান্তে বেড়েছে উত্তেজনা। ভারত কিংবা পাকিস্তান, দু’দেশই যুদ্ধের হুঁশিয়ারি দিয়ে আসছে। এই পরিস্থিতিতে নিজের অস্ত্রভাণ্ডারকে আরও শক্তিশালী করছে ভারত এবং পাকিস্তান।

ভারতের অস্ত্রভান্ডারে ইতিমধ্যে এসেছে অত্যাধুনিক হেলিকপ্টার। কিছুদিনের মধ্যেই ভারতের হাতে আসবে রাশিয়ার অত্যাধুনিক আকাশ প্রতিরক্ষা সিস্টেম এস-৪০০। যা নিয়ে আতঙ্কিত পাকিস্তান এবং চীন উভয় দেশই। আর সেই আতঙ্কেই পাল্টা নিজের অস্ত্রভাণ্ডার সাজাতে শুরু করল পাকিস্তান। এবার ভয়ঙ্কর ক্রুজ মিসাইলের সফল পরীক্ষা চালালো দেশটি।

পাকিস্তারি সংবাদমাধ্যম জানাচ্ছে, সম্প্রতি সফলভাবে যুদ্ধবিমান থেকে একটি ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা চালিয়েছে পাকিস্তান এয়ারফোর্স। পাকিস্তানের আন্তঃবাহিনী জনসংযোগ দফতর বা আইএসপিআর এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, রা’দ নামে এই ক্ষেপণাস্ত্রের পরীক্ষা সফল হওয়ায় পাকিস্তান কৌশলগত যুদ্ধের ক্ষমতা বাড়াতে সক্ষম হবে। আইএসপিআর জানিয়েছে, ক্ষেপণাস্ত্রটির পাল্লা ৬০০ কিলোমিটার।

আইএসপিআর’র বিবৃতিতে বলা হয়েছে, এই ক্ষেপণাস্ত্রের সাহায্যে পাকিস্তানি বিমান বাহিনী সমুদ্র এবং স্থলে হামলা চালাতে পারবে। ক্ষেপণাস্ত্রটিতে অত্যন্ত উন্নতমানের গাইডেন্স এবং নেভিগেশন সিস্টেম ব্যবহার করা হয়েছে যার ফলে এই ক্ষেপণাস্ত্র লক্ষ্যবস্তুতে খুবই নিখুঁতভাবে হামলা চালাতে পারবে।

পাকিস্তানের স্ট্র্যাটেজিক প্ল্যানস ডিভিশনের এক উচ্চপদস্থ কর্মকর্তা ক্রুজ ক্ষেপণাস্ত্রের সফল পরীক্ষাকে তার দেশের যুদ্ধক্ষমতা বাড়িয়ে দেওয়ার ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ পদক্ষেপ হিসেবে উল্লেখ করেছেন। এছাড়া পাকিস্তানের প্রেসিডেন্ট, প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান এবং জয়েন্ট চিফ অব স্টাফের চেয়ারম্যান ক্ষেপণাস্ত্রটির সফল পরীক্ষার প্রশংসা করেছেন।

সূত্র : এই সময়।

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here