মার্কিন বাহিনীর হামলায় ইরানি জেনারেল সোলাইমানির মৃত্যুর পর থেকে বিশ্বজুড়ে বিরাজ করছে এক চাপা আতঙ্ক। ইরান কঠোর প্রতিশোধ নেওয়ার পর চরম উৎকণ্ঠায় আমেরিকা। এমন অবস্থায় বাগদাদের মার্কিন দূতাবাসের দিকে উড়ে এল পরপর তিনটি মিসাইল।

বাগদাদের মার্কিন দূতাবাসে কাছে এই রকেট উৎক্ষেপণ করা হয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে, অল্পের জন্য বেঁচে গেছে মার্কিন দূতাবাস। খবর ডেইলি সাবাহ’র।

এছাড়াও স্থানীয় পত্রিকার প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ওই মিসাইলগুলো একটি অ্যাপার্টমেন্টে আঘাত করে। এর ফলে বেশ কয়েকজন সাধারণ মানুষ মারা গেছে।

মার্কিন সেনাদের দ্বারা ইরানি জেনারেল কাসেম সোলাইমানিকে হত্যার পর এই নিয়ে পর পর দু’রাতে এই দূতাবাসে হামলার ঘটনা ঘটল। তবে কোনক্রমে বেঁচে গেছে দূতাবাস।

ইরাকের রাজধানী বাগদাদের বাসিন্দারা বলেছেন, ভারী-দূর্গের গ্রিন জোনের ভিতরে তিনটি বিস্ফোরণের শব্দ শোনা যায় রবিবার রাতে।

ইরানের সর্বোচ্চ নেতা আগেই জানিয়েছিলেন, শহীদ সোলাইমানি একজন আন্তর্জাতিক ব্যক্তিত্ব ছিলেন। তাদের প্রতিটি সেনা বদলা নিতে প্রস্তুত রয়েছে। তিনি হুঙ্কার দিয়েছিলেন, সকল বন্ধু ও শত্রুর জেনে রাখা উচিত জেনারেল সোলাইমানির মৃত্যুর পর দ্বিগুণ উৎসাহে প্রতিরোধ আন্দোলন এগিয়ে যাবে এবং এই আন্দোলনের বিজয় অনিবার্য। আর সেক্ষেত্রে শত্রুপক্ষের বিনাশ অনিবার্য।

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here