অবশেষে কুয়েতের মধ্যস্থতায় সাড়ে তিন বছর পর কাতারের ওপর থেকে নিষেধাজ্ঞা তুলে নিল সউদী আরব। স্থানীয় গত সোমবার সন্ধ্যায় সউদী আরব প্রতিবেশী কাতারকে তার স্থল সীমান্ত খুলে দিয়েছে। এছাড়া আকাশ ও সমুদ্র সীমান্ত পথও খুলে দিচ্ছে সউদী সরকার। কুয়েতের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর বরাত দিয়ে কাতারের আল-জাজিরা টেলিভিশন চ্যানেল এ খবর দিয়েছে।

সউদী আরবে গতকাল মঙ্গলবার পারস্য উপসাগরীয় দেশগুলোর শীর্ষ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। তার আগে কুয়েতের পররাষ্ট্রমন্ত্রী আহমাদ নাসের আল-সাবাহ গতকাল কুয়েত টিভি চ্যানেলকে বলেন, ‘ভূমি, আকাশ ও সমুদ্র সীমান্ত খুলে দিতে কাতারের সঙ্গে একটি চুক্তিতে পৌঁছেছে সউদী আরব।’

সাড়ে তিন বছর পর সউদী আরব কাতারকে তার সীমান্ত খুলে দিল। আশা করা হচ্ছে- সউদী আরব, সংযুক্ত আরব আমিরাত ও বাহরাইনের সঙ্গে কাতারের দীর্ঘদিন ধরে যে দ্বন্দ্ব আসছিল তা নিরসনের পথ খুলে দেবে এই শীর্ষ সম্মেলন।

২০১৭ সালের জুন মাসে সউদী আরব, বাহরাইন, সংযুক্ত আরব আমিরাত ও মিশর কাতারের ওপর স্থল, সমুদ্র ও আকাশপথের অবরোধ আরোপ করে। এসব দেশ তখন কাতারকে সন্ত্রাসবাদে পৃষ্ঠপোষকতা দেয়ার অভিযোগ তোলে। এছাড়া, ইরানের সঙ্গে কাতারের ঘনিষ্ঠ সম্পর্ককেও এসব দেশ ভালো চোখে দেখে নি। তবে সন্ত্রাসবাদের প্রতি পৃষ্ঠপোষকতার অভিযোগ সবসময় নাকচ করে এসেছে কাতার। অবশেষে ট্রাম্প প্রশাসনের দায়িত্ব ছাড়ার আগেই এই বিষয়টির সুরা হলো।

সূত্র : আল জাজিরা

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here