সিলেটের এমসি কলেজের ছাত্রবাসে স্বামী‌কে আট‌কে স্ত্রী‌কে গণধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। খবর পেয়ে শুক্রবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে পুলিশ ছাত্রাবাসে গিয়ে স্বামী ও স্ত্রী‌কে উদ্ধার করে।

জানা গেছে, শুক্রবার সন্ধ্যার দি‌কে স্বামী-স্ত্রী এম‌সি ক‌লে‌জে বেড়া‌তে গি‌য়ে‌ছি‌লেন। এসময় কলেজ ক্যাম্পাস থেকে ৫-৬ জন তাদের জোরপূর্বক কলেজের ছাত্রবাসে নিয়ে যায়।

সেখানে একটি কক্ষে স্বামীকে আটকে রেখে স্ত্রী‌কে গণধর্ষণ করে তারা। বর্তমানে ধর্ষ‌ণের শিকার তরুণী সিলেট ওসমানী মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের ওসিসিতে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

পুলিশ সূত্র জানায়, ওই স্বামী-স্ত্রী সিলেটে বেড়াতে আসেন শুক্রবার (২৫ সেপ্টেম্বর)। এরপর সন্ধ্যার দিকে ছাত্রলীগের কয়েকজন নেতাকর্মী ছাত্রাবাসের একটি কক্ষে তাদের আটকে রাখে। এমসি কলেজ ছাত্রাবাস পুরোটাই অরক্ষিত। এ কারণে বিকাল থেকে গভীর রাত পর্যন্ত বহিরাগতদের আনাগোনার পাশাপাশি অনেকেই মাদক সেবন করেন সেখানে।

এমসি কলেজের হোস্টেল সুপার জামাল উদ্দিন বলেন, ‘শুনেছি কারা স্বামী-স্ত্রীকে আটকে রেখেছিল হোস্টেলে। পরে পুলিশ গিয়ে তাদের উদ্ধার করে।’ এর বাইরে তিনি আর কিছু বলতে রাজি হননি।

এমসি কলেজের অধ্যক্ষ সালেহ আহমদ বলেন, ‘ঘটনাস্থলে পুলিশ রয়েছে। তারা বিষয়টি দেখছে। তবে যতটুকু জেনেছি, এক দম্পতিকে কারা হোস্টেলে আটক করে রেখেছে।’

এ বিষয়ে জানতে সিলেট মহানগর পুলিশের উপপুলিশ কমিশনার (দক্ষিণ) সোহেল রেজার সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি ফোন ধরেননি।

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here