টঙ্গীতে আগামী ১০ জানুয়ারি অনুষ্ঠেয় বিশ্ব ইজতেমা ময়দানের সার্বিক প্রস্তুতি কাজ শনিবার দুপুরে পরিদর্শন করেছেন ঢাকা বিভাগীয় কমিশনার মোহাম্মদ জয়নুল বারী।

এ সময় তিনি বিশ্ব ইজতেমা ময়দানে প্যান্ডেল তৈরি কাজ ও মুসল্লিদের চলাচলের রাস্তার বিষয়ে খোঁজখবর নেন। ইজতেমা ময়দান পরিদর্শনকালে তার সঙ্গে ছিলেন গাজীপুর জেলা প্রশাসক এসএম তরিকুল ইসলাম, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট মো. শাহীনুর ইসলাম, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) আবু নাসার উদ্দিন, পুলিশের এডিসি (ক্রাইম) শাহাদত হোসেন, এসি আহসানুল হক প্রমুখ।

ময়দান পরিদর্শনকালে ঢাকা বিভাগীয় কমিশনার বলেন, আগামী ১০ জানুয়ারি থেকে ৫৫তম বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্ব শুরু হচ্ছে। এ উপলক্ষে ময়দানের প্রস্তুতি সম্পন্ন করতে আমরা প্রতিদিন ইজতেমা ময়দানের নানান সমস্যা সমাধানে সরকারি নির্দেশনা মোতাবেক তদারকি করছি। আজকে ময়দানের কার্যক্রম ও প্যান্ডেল নির্মাণ সম্পর্কে খোঁজখবর নিতেই পরিদর্শনে এসেছি। আশা করি আগামী ১০ জানুয়ারির আগেই ইজতেমা ময়দানের প্রস্তুতি কাজ সম্পন্ন হবে।

বিশ্ব ইজতেমা আয়োজক কমিটির শীর্ষ মুরব্বি প্রকৌশলী মাহফুজুর রহমান বলেন, আল্লাহর ইচ্ছায় আমরা সময়ের আগেই ইজতেমা ময়দানের সব প্রস্তুতি সম্পন্ন করতে সক্ষম হব। ইজতেমা সফল করতে সরকারের পক্ষ থেকেও আমাদের দিকনির্দেশনা দেয়া হয়েছে।

টঙ্গীর তুরাগ তীরে আগামী ১০ জানুয়ারি শুরু হচ্ছে ৫৫তম বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্ব। প্রথম পর্ব কাকরাইল জামে মসজিদের পেশ ইমাম হাফেজ মাওলানা জোবায়ের আহমেদের নেতৃত্বে পরিচালিত হবে। তা আগামী ১২ জানুয়ারি আখেরি মোনাজাতের মধ্য দিয়ে শেষ হবে।

মাঝে চার দিন বিরতি দিয়ে আগামী ১৭ জানুয়ারি শুরু হবে ভারতের মাওলানা সা’দ আহমাদ কান্ধলভির অনুসারীদের তিন দিনব্যাপী বিশ্ব ইজতেমা। আগামী ১৯ জানুয়ারি আখেরি মোনাজাতের মধ্য দিয়ে তা শেষ হবে।

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here