দেশে এখনো অনেক প্রভাবশালী রাজাকার রয়েছে যাদের নাম বললে আর দেশে আসতে পারবো না, এমন মন্তব্য করে ভাষাসৈনিক আবদুল গাফ্‌ফার চৌধুরী বলেছেন, রাজাকারদের তালিকা করলে দেখা যাবে, রাজাকাররাই সেই তালিকা তৈরি করছে। ওই তালিকায় মুক্তিযোদ্ধারা রাজাকার, রাজাকাররা মুক্তিযোদ্ধা হয়ে যাবে। 

প্রভাবশালী এসব রাজাকারের নাম বললে তিনি আর দেশে আসতে পারবেন না এমন আশঙ্কা ব্যক্ত করে আবদুল গাফফার চৌধুরী বলেন, ‘আওয়ামী লীগের ভেতরে জামায়াতের লোকও আছে। আওয়ামী লীগে কত রাজাকার আছে। বিপদের সময় এরা ভয়ানকভাবে আসে। রাজাকারদের লিস্ট করার আগে এই রাজাকারদের তালিকা প্রকাশ করা উচিত। তাদের নাম বললে আমার আর ঢাকায় আসা হবে না। তাই আমি নাম বলতে চাই না। এই হচ্ছে অবস্থা।

আওয়ামী লীগে থাকা রাজাকারের নাম প্রকাশ করা উচিৎ মন্তব্য করে তিনি বলেন, ‘আওয়ামী লীগের ভেতরে জামায়াতের লোকও আছে। আওয়ামী লীগে কত রাজাকার আছে। বিপদের সময় এরা ভয়ানকভাবে আসে। রাজাকারদের লিস্ট করার আগে এই রাজাকারদের তালিকা প্রকাশ করা উচিত।’

রবিবার দুপুরে রাজধানীর জাতীয় প্রেসক্লাবে এক অনুষ্ঠানে আবদুল গাফ্‌ফার চৌধুরী এসব কথা বলেন। ‘সম্প্রীতি, বঙ্গবন্ধু ও বাঙালির বিজয়’ শীর্ষক এক অনুষ্ঠানের আয়োজন করে সম্প্রীতি বাংলাদেশ।

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here