দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ার দেশ ফিলিপাইন। দেশটির একটি গ্রামে বসবাসরত সবাই এক সঙ্গে গ্রহণ করেছেন শান্তি ও নিরাপত্তার ধর্ম ইসলাম। পুরো গ্রামবাসী একসঙ্গে জড়ো হয়ে তাওহিদের কালিমা পড়ে মুসলমান হয়েছেন। যুক্তরাজ্যভিত্তিক ইসলামিক শিক্ষা ও গবেষণা একাডেমি আইইআরএ এ তথ্য জানিয়েছেন।

ইসলামিক শিক্ষা ও গবেষণা একাডেমির তথ্য মতে নভেম্বরের ১১ তারিখ তারা ইসলাম গ্রহণ করেছেন। মুসলিম স্বেচ্ছাসেবীদের একটি সংগঠন গ্রামবাসীদের ইসলামের দাওয়াত দিলে গ্রামের মানুষ একযোগে ইসলাম গ্রহণ করেন। ইসলাম গ্রহণের এ দৃশ্য সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়ে যায়।

মুসলিম স্বেচ্ছাসেবীদের অফিসিয়াল ফেসবুক পোস্টের একটি ভিডিওতে ইসলাম গ্রহণের এ দৃশ্য দেখা যায়। সেখানে দেখা যায়, সব লোক শাহাদাত আঙুল উঁচিয়ে সমস্বরে তাওহিদের কালেমা পাঠ করছে।

ইসলামিক শিক্ষা ও গবেষণা একাডেমি জানিয়েছে, তাদের দাঈ-রা ফিলিপাইনের ফিলিপিন্স প্রদেশ সেবুতে বানতান দ্বীপের মদিনা মসজিদে যায়। সেখানে তাদের দাওয়াতে একজন ইসলাম গ্রহণ করেন। তার নাম রাখা হয় আবু বকর।

পরে ইসলামের দাওয়াতে নিয়োজিত সে দলটি আবু বকরকে সঙ্গে নিয়ে বান্টায়ান দ্বীপের পাহাড়ি অঞ্চলে বেরিয়ে পড়ে এবং ইসলামের সৌন্দর্য সম্পর্কে মানুষকে ধারণা দেয়।

ইসলামের প্রতি আকৃষ্ট হয়ে বান্টায়ান দ্বীপের পাড়াড়ি অঞ্চলের পুরো এক গ্রামের মানুষ একটি অনুষ্ঠান আয়োজন করে এক সঙ্গে ইসলাম গ্রহণ করেন। সেখানে খ্রিষ্টান ধর্মাবলম্বী প্রায় ২৫০ জন গ্রামবাসী উপস্থিত ছিল।

ইসলাম গ্রহণের আগে ইসলামের নানা দিক নিয়ে নওমুসলিম আবু বকর ও ঈসা খান এক আবেগঘন বক্তব্য দেন। অতঃপর গ্রামবাসীদের সবাই ইসলাম গ্রহণ করার জন্য ইচ্ছা পোষণ করলে তাদেরকে এক সঙ্গে কালিমা পড়ানো হয়। ইসলামের আলোয় আলোকিত হলো ফিলিপাইনের পুরো একটি গ্রাম।

মতামত দিন

Please enter your comment!
Please enter your name here